মোহাম্মদপুর কেন্দ্রীয় কলেজ, সূচনালগ্ন থেকে শুরু করে আজ অবধি তার ধারাবাহিক সাফল্য অক্ষুন্ন রেখেছে। অর্থনীতি বিভাগের পক্ষ থেকে সবাইকে অভিনন্দন। বিশেষভাবে ধন্যবাদ জানাচ্ছি সুযোগ্য অধ্যক্ষ মহোদয়কে যাঁর নেতৃত্বে আমরা উন্নয়নের দিকে ধাবমান। প্রতিষ্ঠার শুরু থেকেই উচ্চ মাধ্যমিক শ্রেণির মানবিক ও ব্যবসায় শিক্ষার শিক্ষার্থীদের জন্য অর্থনীতি বিষয়টি অন্তর্ভূক্ত করা হয়। তারপর ডিগ্রী (পাস) কলা ও বাণিজ্য বিভাগের শিক্ষার্থীদের জন্য বিষয়টি অন্তর্ভূক্ত হয়। উল্লেখ্য, ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষ থেকে অর্থনীতি বিভাগের ¯œাতক (সম্মান) শ্রেণির যাত্রা শুরু হয়।

উন্নয়নের বলিষ্ঠ দৃপ্ত পদক্ষেপের সাথে তাল মিলিয়ে আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত করে শিক্ষার্থীদের দেশপ্রেমিক ও সুনাগরিক হিসেবে গড়ে তোলাই আমাদের প্রয়াস। আমাদের বিশ^াস শুধুমাত্র পুঁথিগত বিদ্যাই নয় বরং বর্তমান বিশে^র তথ্য-প্রযুক্তি, শিক্ষা-সংস্কৃতি প্রভৃতি সম্পর্কে জ্ঞানলাভের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা নিজেদেরকে অধিকতর দক্ষ ও যোগ্য হয়ে নানাবিধ চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় আরো বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখতে পারবে। তাছাড়া বর্তমান পৃথিবীর এই ক্রানিÍলগ্নে জাতিকে একটি সুনির্দিষ্ট সুউচ্চ অবস্থানে নিয়ে যাবার জন্য এই বিভাগের শিক্ষার্থীরাই পারবে কন্টকাকীর্ণ পথকে কুসুমাস্তীর্ণ করতে, বিন্দুর মাঝে সিন্ধুর বহি:প্রকাশ ঘটাতে। আর বিভিন্ন তত্ত্বের প্রায়োগিক দিক আলোচনা করে হাজারো অজানা সমস্যার সমাধানের তৃপ্তি আস্বাদন করতে হলে অর্থনীতি পাঠের বিকল্প নেই। তাছাড়া বর্তমান পৃথিবী বহুলাংশে অর্থনীতিবিদদের উপর নির্ভরশীল। কেননা পুরো পৃথিবীর মানুষই চায় তার সীমিত সম্পদ দিয়ে অসীম অভাব পূরণ করতে, আর একজন অর্থনীতির শিক্ষার্থী পারে এই দুটির মাঝে সমন্বয় সাধন করতে।
তারই ধারাবাহিকতায় জাতিকে একটি সুনির্দিষ্ট বাঞ্চিত বন্দরে পৌঁছাবার জন্য আমার বিভাগের অন্যান্য সকল শিক্ষকদের সাধুবাদ জানাই যে, তাঁরা অত্যন্ত দক্ষতার সাথে শিক্ষার্থীদের মধ্যে সৃজনশীল চিন্তা উদয়ের জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছে।
আমাদের সুযোগ্য অধ্যক্ষ মহোদয় কলেজের উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। আমি সকলকে আবারো অর্থনীতি বিভাগের পক্ষ থেকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানাচ্ছি এবং সবার সার্বিক সাফল্য কামনা করছি।

 

মাহবুবা আক্তার
বিভাগীয় প্রধান